ETV Bharat / bharat

চড়-লাথি মেরেছেন কেজরিওয়ালের ব্যক্তিগত সচিব, দিল্লি পুলিশকে জানিয়েছেন স্বাতী মালিওয়াল - Swati Maliwal

author img

By ETV Bharat Bangla Team

Published : May 17, 2024, 2:11 PM IST

Swati Maliwal: দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের ব্যক্তিগত সচিব বৈভব কুমার তাঁকে মারধর করেন বলে পুলিশের কাছে দায়ের করা অভিযোগে জানিয়েছেন রাজ্যসভার সাংসদ স্বাতী মালিওয়াল ৷ বৃহস্পতিবার তাঁর মেডিক্যাল পরীক্ষা হয় এইমসে ৷ দিল্লি পুলিশ বৈভবের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করে তদন্ত শুরু করেছে ৷

Swati Maliwal
স্বাতী মালিওয়াল (আইএএনএস)

নয়াদিল্লি, 17 মে: দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের ব্যক্তিগত সচিব বৈভব কুমারের বিরুদ্ধে দিল্লি পুলিশের কাছে যে অভিযোগ দায়ের করেছেন রাজ্যসভার সাংসদ স্বাতী মালিওয়াল, সেখানে তিনি জানিয়েছেন যে বৈভব কুমার মুখ্যমন্ত্রীর বাসভবনের মধ্যে তাঁকে চড় মেরেছেন ৷ তাঁর পেটে লাথিও মারা হয় বলে অভিযোগ স্বাতীর ৷

বৃহস্পতিবার স্বাতী মালিওয়ালকে নয়াদিল্লির এইমসে মেডিক্যাল পরীক্ষা করানোর জন্য নিয়ে যায় দিল্লি পুলিশ ৷ সেখানে প্রায় দু’ঘণ্টা ছিলেন আম আদমি পার্টির এই সাংসদ ৷ ভোর সাড়ে তিনটে নাগাদ তাঁর গাড়ি এইমস ছেড়ে বেরিয়ে যায় ৷ ভোর চারটে নাগাদ তিনি বাড়ি পৌঁছান ৷ গাড়ি থেকে নেমে বাড়িতে প্রবেশ করার সময় তাঁকে খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে হাঁটতে দেখা গিয়েছে ৷

এই ঘটনায় ইতিমধ্যে বৈভব কুমারের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেছে দিল্লি পুলিশ ৷ সেখানে বৈভবের বিরুদ্ধে আইপিসির একাধিক ধারায় অভিযোগ আনা হয়েছে ৷ তার মধ্যে অপরাধের উদ্দেশ্যে কোনও মহিলার উপর অশালীন আক্রমণ, মারধর-সহ একাধিক অভিযোগের প্রেক্ষিতে ধারা দেওয়া হয়েছে ৷

এই ঘটনার বিষয়টি সামনে আসার পর থেকেই এই নিয়ে সরব হয়েছিল বিজেপি ৷ এই নিয়ে আম আদমি পার্টির আহ্বায়ক অরবিন্দ কেজরিওয়ালকেই নিশানা করে বিজেপি ৷ কিন্তু এই নিয়ে বিজেপিকে রাজনীতি না করার জন্য অনুরোধ করেছেন স্বাতী মালিওয়াল ৷ এই নিয়ে তিনি সোশাল মিডিয়ায় একটি পোস্ট করেছেন ৷ সেখানেই তিনি এই অনুরোধ করেছেন ৷

তিনি লিখেছেন, "আমার সঙ্গে যা ঘটেছে, তা খুবই খারাপ ছিল । আমার সঙ্গে যে ঘটনা ঘটেছে, সেই বিষয়ে আমি পুলিশের কাছে আমার বিবৃতি দিয়েছি । আমি আশা করি উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হবে । গত কয়েকদিন আমার জন্য খুব কঠিন ছিল । যারা প্রার্থনা করেছেন, আমি তাঁদের ধন্যবাদ জানাই ৷ আমার যারা চরিত্র হননের চেষ্টা করেছিল, যারা বলেছিল যে আমি অন্য পক্ষের নির্দেশে এটি করছি, ঈশ্বর তাদেরও খুশি রাখুন ।"

এর পর তাঁর সংযোজন, "দেশে একটি গুরুত্বপূর্ণ নির্বাচন চলছে, স্বাতী মালিওয়াল গুরুত্বপূর্ণ নয়, দেশের সমস্যাগুলি গুরুত্বপূর্ণ । এই ঘটনায় রাজনীতি না করার জন্য বিজেপির লোকদের বিশেষ অনুরোধ রইল ।" এদিকে এই ঘটনায় ইতিমধ্যেই পদক্ষেপ করেছে জাতীয় মহিলা কমিশন৷ কমিশনের তরফে আজ, শুক্রবার তলব করা হয়েছে বৈভব কুমার ৷ তবে তিনি হাজিরা দিয়েছেন কি না, তা জানা যায়নি ৷

আপের তরফে স্বাতী মালিওয়ালের উপর হেনস্তার অভিযোগ স্বীকার করে নেওয়া হয়েছে ৷ এই ঘটনার সমালোচনাও করা হয়েছে ৷ যদিও বিজেপির দাবি, দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের নির্দেশেই এই কাজ করেছে বৈভব কুমার ৷ কারণের বৈভবের কাজ শুধু কেজরিওয়ালের নির্দেশ পালন করা ৷ এর আগেও অনেককে এভাবে হেনস্তা করেছেন বৈভব ৷ তাই বিজেপি কেজরিওয়ালের পদত্যাগের দাবি তুলেছে ৷

অন্যদিকে এই ঘটনার তদন্তে কেজরিওয়ালের বাসভবনের সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখতে চায় দিল্লি পুলিশ ৷ যে সংস্থা কেজরিওয়ালের বাসভবনে সিসিটিভি ক্যামেরা বসিয়েছে, তাদের কাছে ফুটেজ চেয়ে পাঠিয়েছেন তদন্তকারীরা ৷ সেই ফুটেজ হাতে এলে, তা খতিয়ে দেখা হবে ৷ এই ঘটনার জন্য দশটি তদন্তকারী দল তৈরি হয়েছে ৷ এর মধ্যে চারটি দল বৈভবকে খুঁজছে ৷ প্রাথমিকভাবে পুলিশ জানতে পেরেছে যে পঞ্জাবে আছেন বৈভব ৷ এছাড়াও এই ঘটনার টাইমলাইন তৈরি করছে পুলিশ ৷ এছাড়া কেজরিওয়ালের বাসভবনেও যেতে পারে দিল্লি পুলিশ ৷

আরও পড়ুন:

  1. দিল্লি মহিলা কমিশনে বেআইনি নিয়োগের অভিযোগ স্বাতীর বিরুদ্ধে, ছাঁটাই 223 জন
  2. 'বাবা আমাকে যৌন নিগ্রহ করতেন !' স্বাতীর মন্তব্যে ঝড়
  3. ধর্ষণে সাজাপ্রাপ্তদের শাস্তিমকুব ও প্যারোল নিয়ে কড়া আইনের দাবিতে মোদিকে চিঠি মালিওয়ালের

নয়াদিল্লি, 17 মে: দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের ব্যক্তিগত সচিব বৈভব কুমারের বিরুদ্ধে দিল্লি পুলিশের কাছে যে অভিযোগ দায়ের করেছেন রাজ্যসভার সাংসদ স্বাতী মালিওয়াল, সেখানে তিনি জানিয়েছেন যে বৈভব কুমার মুখ্যমন্ত্রীর বাসভবনের মধ্যে তাঁকে চড় মেরেছেন ৷ তাঁর পেটে লাথিও মারা হয় বলে অভিযোগ স্বাতীর ৷

বৃহস্পতিবার স্বাতী মালিওয়ালকে নয়াদিল্লির এইমসে মেডিক্যাল পরীক্ষা করানোর জন্য নিয়ে যায় দিল্লি পুলিশ ৷ সেখানে প্রায় দু’ঘণ্টা ছিলেন আম আদমি পার্টির এই সাংসদ ৷ ভোর সাড়ে তিনটে নাগাদ তাঁর গাড়ি এইমস ছেড়ে বেরিয়ে যায় ৷ ভোর চারটে নাগাদ তিনি বাড়ি পৌঁছান ৷ গাড়ি থেকে নেমে বাড়িতে প্রবেশ করার সময় তাঁকে খুঁড়িয়ে খুঁড়িয়ে হাঁটতে দেখা গিয়েছে ৷

এই ঘটনায় ইতিমধ্যে বৈভব কুমারের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করেছে দিল্লি পুলিশ ৷ সেখানে বৈভবের বিরুদ্ধে আইপিসির একাধিক ধারায় অভিযোগ আনা হয়েছে ৷ তার মধ্যে অপরাধের উদ্দেশ্যে কোনও মহিলার উপর অশালীন আক্রমণ, মারধর-সহ একাধিক অভিযোগের প্রেক্ষিতে ধারা দেওয়া হয়েছে ৷

এই ঘটনার বিষয়টি সামনে আসার পর থেকেই এই নিয়ে সরব হয়েছিল বিজেপি ৷ এই নিয়ে আম আদমি পার্টির আহ্বায়ক অরবিন্দ কেজরিওয়ালকেই নিশানা করে বিজেপি ৷ কিন্তু এই নিয়ে বিজেপিকে রাজনীতি না করার জন্য অনুরোধ করেছেন স্বাতী মালিওয়াল ৷ এই নিয়ে তিনি সোশাল মিডিয়ায় একটি পোস্ট করেছেন ৷ সেখানেই তিনি এই অনুরোধ করেছেন ৷

তিনি লিখেছেন, "আমার সঙ্গে যা ঘটেছে, তা খুবই খারাপ ছিল । আমার সঙ্গে যে ঘটনা ঘটেছে, সেই বিষয়ে আমি পুলিশের কাছে আমার বিবৃতি দিয়েছি । আমি আশা করি উপযুক্ত ব্যবস্থা নেওয়া হবে । গত কয়েকদিন আমার জন্য খুব কঠিন ছিল । যারা প্রার্থনা করেছেন, আমি তাঁদের ধন্যবাদ জানাই ৷ আমার যারা চরিত্র হননের চেষ্টা করেছিল, যারা বলেছিল যে আমি অন্য পক্ষের নির্দেশে এটি করছি, ঈশ্বর তাদেরও খুশি রাখুন ।"

এর পর তাঁর সংযোজন, "দেশে একটি গুরুত্বপূর্ণ নির্বাচন চলছে, স্বাতী মালিওয়াল গুরুত্বপূর্ণ নয়, দেশের সমস্যাগুলি গুরুত্বপূর্ণ । এই ঘটনায় রাজনীতি না করার জন্য বিজেপির লোকদের বিশেষ অনুরোধ রইল ।" এদিকে এই ঘটনায় ইতিমধ্যেই পদক্ষেপ করেছে জাতীয় মহিলা কমিশন৷ কমিশনের তরফে আজ, শুক্রবার তলব করা হয়েছে বৈভব কুমার ৷ তবে তিনি হাজিরা দিয়েছেন কি না, তা জানা যায়নি ৷

আপের তরফে স্বাতী মালিওয়ালের উপর হেনস্তার অভিযোগ স্বীকার করে নেওয়া হয়েছে ৷ এই ঘটনার সমালোচনাও করা হয়েছে ৷ যদিও বিজেপির দাবি, দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের নির্দেশেই এই কাজ করেছে বৈভব কুমার ৷ কারণের বৈভবের কাজ শুধু কেজরিওয়ালের নির্দেশ পালন করা ৷ এর আগেও অনেককে এভাবে হেনস্তা করেছেন বৈভব ৷ তাই বিজেপি কেজরিওয়ালের পদত্যাগের দাবি তুলেছে ৷

অন্যদিকে এই ঘটনার তদন্তে কেজরিওয়ালের বাসভবনের সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখতে চায় দিল্লি পুলিশ ৷ যে সংস্থা কেজরিওয়ালের বাসভবনে সিসিটিভি ক্যামেরা বসিয়েছে, তাদের কাছে ফুটেজ চেয়ে পাঠিয়েছেন তদন্তকারীরা ৷ সেই ফুটেজ হাতে এলে, তা খতিয়ে দেখা হবে ৷ এই ঘটনার জন্য দশটি তদন্তকারী দল তৈরি হয়েছে ৷ এর মধ্যে চারটি দল বৈভবকে খুঁজছে ৷ প্রাথমিকভাবে পুলিশ জানতে পেরেছে যে পঞ্জাবে আছেন বৈভব ৷ এছাড়াও এই ঘটনার টাইমলাইন তৈরি করছে পুলিশ ৷ এছাড়া কেজরিওয়ালের বাসভবনেও যেতে পারে দিল্লি পুলিশ ৷

আরও পড়ুন:

  1. দিল্লি মহিলা কমিশনে বেআইনি নিয়োগের অভিযোগ স্বাতীর বিরুদ্ধে, ছাঁটাই 223 জন
  2. 'বাবা আমাকে যৌন নিগ্রহ করতেন !' স্বাতীর মন্তব্যে ঝড়
  3. ধর্ষণে সাজাপ্রাপ্তদের শাস্তিমকুব ও প্যারোল নিয়ে কড়া আইনের দাবিতে মোদিকে চিঠি মালিওয়ালের
ETV Bharat Logo

Copyright © 2024 Ushodaya Enterprises Pvt. Ltd., All Rights Reserved.