জ্ঞানবাপী মসজিদের জায়গায় বড় হিন্দু মন্দির ছিল, এএসআই-এর রিপোর্টে দাবি

author img

By ETV Bharat Bangla Desk

Published : Jan 25, 2024, 10:46 PM IST

Etv Bharat

ASI Report on Gyanvapi Mosque: গত বছর 21 জুলাই জেলা আদালতের আদেশের পর, এএসআই জ্ঞানবাপী প্রাঙ্গনে বৈজ্ঞানিক জরিপ চালিয়েছিল ৷ মসজিদটি একটি হিন্দু মন্দিরের পূর্ব-বিদ্যমান কাঠামোর উপর নির্মিত হয়েছিল কিনা তা জানার জন্যই সমীক্ষা চালানো হয় এএসআই-এর তরফে। হিন্দু পক্ষের প্রতিনিধিত্বকারী আইনজীবী বিষ্ণু শঙ্কর জৈন সাংবাদিক সম্মেলন করে বৃহস্পতিবার এএসআই-এর জারি করা রিপোর্টটি প্রকাশ্যে আনেন ৷

বারাণসী, 25 জানুয়ারি: বারাণসীতে জ্ঞানবাপী মসজিদ নির্মাণের আগে একটি হিন্দু মন্দিরের অস্তিত্ব ছিল ৷ ভারতীয় প্রত্নতাত্ত্বিক বিভাগ (এএসআই) গত বছরের জুন মাসে জেলা আদালতের নির্দেশে পরিচালিত সমীক্ষায় এমনটাই জানিয়েছে বলে দাবি ৷ মামলায় হিন্দু পক্ষের প্রতিনিধিত্বকারী আইনজীবী বিষ্ণু শঙ্কর জৈন সাংবাদিক সম্মেলন করে বৃহস্পতিবার এএসআই-এর জারি করা রিপোর্টটি প্রকাশ্যে আনেন ৷ তিনি বলেন, "এএসআই সমীক্ষা প্রতিবেদনের উপসংহারে বলা হয়েছে যে 'এটি বলা যেতে পারে যে বিদ্যমান কাঠামো নির্মাণের আগে এখানে একটি বড় হিন্দু মন্দির ছিল' ৷"

হিন্দু পক্ষের আইনজীবী আরও বলেছেন, "এএসআই জানিয়েছে, বিদ্যমান কাঠামো নির্মাণের আগে সেখানে একটি বড় হিন্দু মন্দির ছিল। এটি এএসআই-এর চূড়ান্ত অনুসন্ধান ৷" এর আগে, বৃহস্পতিবার কাশী বিশ্বনাথ মন্দির সংলগ্ন জ্ঞানবাপী মসজিদ কমপ্লেক্সে এএসআই সমীক্ষা প্রতিবেদনের অনুলিপির জন্য হিন্দু ও মুসলিম উভয় পক্ষ-সহ 11 জন লোক আবেদন করেছিলেন।

গত বছর 21 জুলাই জেলা আদালতের আদেশের পর, এএসআই জ্ঞানবাপী প্রাঙ্গনে বৈজ্ঞানিক জরিপ চালিয়েছিল ৷ মসজিদটি একটি হিন্দু মন্দিরের পূর্ব-বিদ্যমান কাঠামোর উপর নির্মিত হয়েছিল কিনা তা জানার জন্যই সমীক্ষা চালানো হয় এএসআই-এর তরফে। হিন্দুদের প্রতিনিধিত্বকারী অন্য আরও একজন আইনজীবী বলেন, "এএসআই সমীক্ষা রিপোর্টের অনুলিপির জন্য 11 জন ব্যক্তি উভয় পক্ষ থেকে আবেদন করেছেন ৷" হিন্দু পক্ষ থেকে পাঁচজন আবেদনকারীর প্রতিনিধিত্বকারী আইনজীবী অঞ্জুমান, ইন্তেজামিয়া মসজিদ কমিটি, কাশী বিশ্বনাথ ট্রাস্ট, রাজ্য সরকার, মুখ্যসচিব, স্বরাষ্ট্রসচিব এবং বারাণসী জেলা ম্যাজিস্ট্রেট সমীক্ষা রিপোর্টের অনুলিপির জন্য আবেদন করেছিলেন।

বুধবার জেলা বিচারক একে বিশ্বেশ তাঁর নির্দেশে জানিয়েছিলেন, জ্ঞানবাপী মসজিদ কমপ্লেক্সে এএসআই সমীক্ষা রিপোর্ট হিন্দু এবং মুসলিম উভয় পক্ষকেই দেওয়া হবে। বিষয়টি শোনার পর বিচারক বিশ্বেশ বলেন, মামলার উভয় পক্ষকেই আদালতে এএসআই দ্বারা দাখিল করা সমীক্ষা প্রতিবেদনের কপি সরবরাহ করতে হবে যাতে তারা এর বিরুদ্ধে আপত্তি জানাতে পারে।

আরও পড়ুন

মাটির ভাঁড়ে চায়ে চুমুক ! ইউপিআইতে দাম মিটিয়ে অভিভূত ফরাসি প্রেসিডেন্ট ম্যাক্রোঁ

75তম সাধারণতন্ত্র দিবসের আগের সন্ধ্যায় রাষ্ট্রপতির বার্তা, গুরুত্ব পেল 'রাম মন্দির'

মহারাষ্ট্র থেকে সুবিশাল তলোয়ার উপহার পেলেন রামলালা, ওজন কত জানেন ?

ETV Bharat Logo

Copyright © 2024 Ushodaya Enterprises Pvt. Ltd., All Rights Reserved.