ETV Bharat / state

Amherst Street PS Death Incident: থানায় ব্যবসায়ীর রহস্য-মৃত্যু, পুলিশ কর্মীদের নামের তালিকা তৈরি করল লালবাজার

author img

By ETV Bharat Bangla Team

Published : Nov 16, 2023, 6:38 AM IST

Updated : Nov 16, 2023, 12:15 PM IST

আমহার্স্ট স্ট্রিট থানায় জিজ্ঞাসাবাদের সময় মৃত্যু হয় এক ব্যবসায়ীর ৷ এই ঘটনায় পুলিশকেই কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছে স্থানীয় বাসিন্দা থেকে শুরু করে মৃতের পরিবারের সদস্যরা ৷ এর মধ্যেই বড় পদক্ষেপ করল লালবাজার ।

ETV Bharat
আমহার্স্ট স্ট্রিট থানায় রহস্য মৃত্যু

কলকাতা, 16 নভেম্বর: থানায় জেরার মাঝেই মৃত্যু হল ব্যবসায়ীর ৷ বুধবার সন্ধ্যায় আমহার্স্ট স্ট্রিট থানায় এই ঘটনার পর চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে এলাকায় ৷ পুলিশের বিরুদ্ধে ওই ব্যবসায়ীকে পিটিয়ে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে ৷ ঘটনাটি খতিয়ে দেখছেন কলকাতা পুলিশের একজন অতিরিক্ত নগরপাল পদমর্যাদার পুলিশ আধিকারিক ৷

এছাড়া ওই ঘটনার সময় আমহার্স্ট স্ট্রিট থানার অফিসার ইনচার্জ এবং অতিরিক্ত অফিসার ইনচার্জ-সহ যে ক'জন পুলিশকর্মী থানায় উপস্থিত ছিলেন, তাঁদের নামের তালিকা তৈরি করেছে লালবাজার ৷ তাঁদের সঙ্গে আলাদা আলাদা করে কথা বলে ঠিক কী হয়েছিল, তা জানার চেষ্টা করবেন পুলিশ কর্তারা ৷

সূত্রের খবর, ওই ব্যবসায়ীকে চুরির ঘটনায় ডেকে পাঠানো হয় ৷ সেই বিষয়ে থানায় জিজ্ঞাসাবাদ চলছিল ৷ কিন্তু থানাতেই তাঁর রহস্য মৃত্যু হয় ৷ ওই ব্যবসায়ী অশোক কুমার সাউ বেনিয়াটোলা লেনের বাসিন্দা ৷ ব্যবসায়ী সমিতি থেকে শুরু করে এলাকার বাসিন্দাদের অভিযোগ, থানায় ভিতরে তাঁকে পিটিয়ে হত্যা করেছে কলকাতা পুলিশ ৷ এই ঘটনায় যখন উত্তপ্ত কলেজস্ট্রিট চত্বর এবং দফায় দফায় রাস্তা অবরোধ করছে স্থানীয় বাসিন্দারা সেই সময় বড় পদক্ষেপ কলকাতা পুলিশের ৷

বেনিয়াটোলা লেনের বাসিন্দা মৃত অশোক কুমার সাউ যে মোবাইল ফোনটি ব্যবহার করছিলেন, সেটি চুরির মোবাইল ফোন ৷ তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ, 200 টাকা দিয়ে সেই ফোনটি কিনেছিলেন অশোক ৷ তাই বুধবার বিকেলে 5 টা নাগাদ কলকাতা পুলিশের নর্থ ডিভিশনের মনিটরিং সেল থেকে তাঁর কাছে ফোন যায় ৷ বলা হয়, সংশ্লিষ্ট মোবাইল ফোনটি যেন তিনি আমহার্স্ট স্ট্রিট থানায় জমা দেন ৷

লালবাজার সূত্রে খবর, বিকেল 5 টা 43 মিনিটে থানায় ঢোকেন অশোক ৷ 5 টা 48 মিনিটে থানার বাইরে বেরিয়ে কাউকে ফোন করেন তিনি ৷ সিসিটিভি ফুটেজে দেখা যায়, এরপর সন্ধ্যা 6 টা 5মিনিটে ফের থানায় একজন পুলিশকর্মীর সঙ্গে অনেকক্ষণ ধরে কথা বলেন অশোক ৷ এরপর সন্ধ্যা 6টা 8 মিনিটে থানার এক ডিউটি অফিসারের সঙ্গে কথা বলতে ফের থানায় ঢোকেন অশোক ৷ তারপরই সন্ধ্যা 6টা 10 মিনিটে ডিউটি অফিসারের ঘর থেকে অসুস্থ অবস্থায় বের করা হয় অশোককে ৷ ঘরের মধ্যে এমন কী হল, যাতে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়লেন, সেই তথ্য এখনও জানা যায়নি ।

রাতে কলেজ স্ট্রিট চত্বর অবরোধ করেন এলাকার বাসিন্দারা ৷ মৃতের পরিবারের সদস্যদের থানায় ডেকে নিয়ে যায় পুলিশ ৷ অভিযোগ, তাঁদের একতরফা একটি সিসিটিভি ফুটেজ দেখাচ্ছে পুলিশ ৷ সত্যতা যাচাই করে কীভাবে তাঁর মৃত্যু হল সেই ঘটনা তুলে ধরার দাবি তুলেছেন বাসিন্দা থেকে শুরু করে মৃত অশোকের পরিবারের সদস্যরা ৷

এদিকে রাতেই ঘটনাস্থলে পৌঁছন বিজেপি নেতা সজল ঘোষ ৷ তিনি অবিলম্বে আমহার্স্ট স্ট্রিট থানার অফিসার ইনচার্জের পদত্যাগের দাবি জানিয়েছেন ৷ তাঁর আরও দাবি, মৃত অশোক কুমার সাউয়ের দেহের ময়নাতদন্ত রাজ্য সরকারের কোনও হাসপাতালে না করে কেন্দ্রীয় সরকারের অধীনস্ত যে কোনও হাসপাতালে করতে হবে ৷ তাঁর দাবি কীভাবে ওই ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে, তা জানার জন্য ময়নাতদন্তের রিপোর্ট অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ৷

আরও পড়ুন:

1. জিজ্ঞাসাবাদের মাঝে ব্যবসায়ীর রহস্য মৃত্যু, কাঠগড়ায় আমহার্স্ট স্ট্রিট থানা

2. রুপো চুরির অভিযোগ, রাজকোটে বাংলার দুই যুবককে পিটিয়ে খুন

3. বন্ধুকে খুন! স্কুটিতে দেহ নিয়ে গুয়াহাটির রাস্তায় ছুড়ে ফেলল অভিযুক্ত

Last Updated :Nov 16, 2023, 12:15 PM IST
ETV Bharat Logo

Copyright © 2024 Ushodaya Enterprises Pvt. Ltd., All Rights Reserved.