প্রদীপ জ্বালাতে গিয়ে অগ্নিদগ্ধ ডেপুটি মেয়রের মা, আশঙ্কাজনক অবস্থায় ভর্তি হাসপাতালে

author img

By ETV Bharat Bangla Desk

Published : Jan 28, 2024, 6:40 AM IST

Etv Bharat

Deputy Mayor Atin Ghosh: সন্ধ্যা প্রদীপ জ্বালতে গিয়ে দুর্ঘটনা ৷ অগ্নিদগ্ধ হয়ে আরজিকর হাসপাতালে ভরতি ডেপুটি মেয়র অতীন ঘোষের মা ৷ অবস্থা আশঙ্কাজনক ৷

কলকাতা, 28 জানুয়ারি: অগ্নিদগ্ধ হয়ে আশঙ্কাজনক অবস্থায় হাসপাতালে ভরতি হলেন কলকাতার ডেপুটি মেয়র অতীন ঘোষের মা গীতা ঘোষ ৷ স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, শনিবার সন্ধ্যা নাগাদ গীতা দেবী তাঁদের পুরনো বাড়ির ঠাকুরঘরে সন্ধ্যা দিতে গিয়েছিলেন ৷ প্রদীপ ধরানোর জন্য দেশলাই জ্বালান ৷ কিন্তু সেই দেশলাই কাঠি না জ্বলায় তিনি তৎক্ষণাৎ সেটি পাশেই ফেলে দেন ৷ ফের একটি কাঠি জ্বালান ৷

এদিকে যে কাঠি তিনি ফেলে দিয়েছিলেন জ্বলেনি ভেবে সেই কাঠি থেকেই তাঁর গায়ের চাদর ও পরনের শাড়িতে আগুন ধরে যায় । আতঙ্কে চিৎকার করে তিনি ঘরের বাইরে বেরিয়ে আসেন । পাশের ঘরেই পরিবারের সদস্য অতীন ঘোষের দুই ভাই ও তাদের স্ত্রীরা চিৎকার শুনে ঘর থেকে বেরিয়ে দেখেন আগুনে জ্বলছেন গীতা দেবী । দ্রুত বিছানার চাদর, কম্বল যেমন যা হাতের সামনে ছিল তা জড়িয়ে আগুন নেভানোর চেষ্টা করেন তাঁরা । তাতে আগুন নিভে গেলেও গুরুতর আহত হন গীতাদেবী ৷

কিছুক্ষণের আগুনেই তাঁর শরীরের অধিকাংশ ঝলসে যায় । তড়িঘড়ি তাঁকে আরজিকর হাসপাতালে জরুরি বিভাগে নিয়ে যাওয়া হয় । সেখান থেকে চিকিৎসকরা দেখে বার্ন ওয়ার্ডে স্থানান্তর করেন । হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, আশঙ্কাজনক অবস্থায় রয়েছেন ডেপুটি মেয়র ও কাশীপুর বেলগাছিয়া বিধানসভায় বিধায়ক অতীন ঘোষের মা গীতা ঘোষ ৷ তাঁর বয়স 87 বছর ৷ 24 ঘণ্টা নজরদারির মধ্যে রাখা হয়েছে । দেহের 60 শতাংশ পুড়ে গিয়েছে ৷ এমন ঘটনায় স্বভাবতই উদ্বিগ্ন পরিবার থেকে প্রতিবেশী সকলেই । খবর জানা মাত্রই অনেকেই তাঁর শারীরিক অবস্থার খোঁজ নিতে পৌঁছে যান হাসপাতালে ।

আরও পড়ুন :

  1. ফ্রিজের দোকানে আগুন, বিস্ফোরণের জেরে ক্ষতিগ্রস্থ বাড়ি
  2. স্কুলগাড়িতে আগুন, চালকের বুদ্ধিতে প্রাণে বাঁচল 12 পড়ুয়া-সহ অভিভাবক
  3. মশার ধূপের ফুলকি থেকে ভয়াবহ আগুন, গবাদি পশু-সহ ভস্মীভূত 10টি বাড়ি
ETV Bharat Logo

Copyright © 2024 Ushodaya Enterprises Pvt. Ltd., All Rights Reserved.