ভারত-বাংলাদেশ সীমান্তে 5 কোটিরও বেশি মূল্যের সোনা-সহ গ্রেফতার 2 পাচারকারী

author img

By ETV Bharat Bangla Desk

Published : Jan 24, 2024, 6:47 PM IST

ETV Bharat

BSF seizes gold bar: ভারত-বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক সীমান্তে কয়েক কোটি টাকা মূল্যের সোনা বাজেয়াপ্ত করল বিএসএফ ৷ এর সঙ্গে সীমান্ত রক্ষী বাহিনীর হাতে গ্রেফতার হয়েছে 2 পাচারকারী ৷

কলকাতা, 24 জানুযারি: দুই দেশের আন্তর্জাতিক সীমান্তে বিপুল অঙ্কের সোনা আটক করল বিএসএফ ৷ এর ফলে নতুন রেকর্ড করল দেশের সীমান্ত রক্ষী বাহিনী । সরকারি সূত্রের খবর, দক্ষিণবঙ্গ বিএসএফের 32 ব্যাটালিয়নের বিজয়পুরের বিএসএফ জওয়ানরা নদিয়া জেলায় সোনা চোরাচালান বানচাল করেছে ৷ 19টি সোনার বিস্কুট ও একটি সোনার ইট সমেত এক চোরাকারবারীকে গ্রেফতার করেছে ৷ এই সোনা ভারত-বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক সীমান্তের মাধ্যমে বাংলাদেশ থেকে ভারতে পাচারের চেষ্টা চলছিল ৷ বাজেয়াপ্ত করা সোনার ওজন 3.56 কেজি ৷ বাজারে এর আনুমানিক মূল্য 2 কোটি 19 লক্ষ 61 হাজার 200 টাকা ৷

বিএসএফ সূত্রে আরও খবর, গত দু'দিনের মধ্যে, বিএসএফ জওয়ানরা 5.29 কোটি টাকা মূল্যের মোট 4.39 কেজি সোনা বাজেয়াপ্ত করেছে ৷ এর সঙ্গে 2 জন চোরাচালানকারীকেও গ্রেফতার করা হয়েছে ৷ বিএসএফ সূত্রের দাবি, নদিয়ার বিজয়পুর সীমান্ত চৌকিরজওয়ানরা বিশ্বস্ত সূত্রে সোনা চোরাচালানের খবর পান ৷

এরপর ভারত-বাংলাদেশ আন্তর্জাতিক সীমান্তের এক কিলোমিটার পর্যন্ত টহলদারি করতে থাকে ৷ সে সময় সাইকেলে চেপে একজন সন্দেহভাজন ব্যক্তিকে আসতে দেখা যায় ৷ টহলদারি এলাকায় পৌঁছতেই জওয়ানরা তাকে ধরে ফেলে ৷ তল্লাশি চালিয়ে ওই ব্যক্তির কোমরে বাঁধা একটি কাপড়ের বেল্ট থেকে 19টি সোনার বিস্কুট এবং 1টি সোনার ইট উদ্ধার করা হয় ৷ এরপরে জওয়ানরা পাচারকারীকে হেফাজতে নিয়ে সোনা বাজেয়াপ্ত করে ৷ ধৃত চোরাকারবারী নদিয়ার বিজয়পুর এলাকারই বাসিন্দা ৷

চোরাকারবারী জিজ্ঞাসাবাদে জানায়, সে গত কয়েকদিন ধরে সোনা চোরাচালানের সঙ্গে জড়িত ছিল ৷ বিজয়পুর গ্রামে বসবাসকারী দুই ব্যক্তির হয়ে সে কাজ করে ৷ তার সঙ্গে আরও দুই সহকর্মী লাইনম্যান হিসেবে কর্মরত ছিল ৷ ওই ব্যক্তি জানায়, বাংলাদেশের নাস্তিপুর গ্রামের বাসিন্দা শিন্তো মণ্ডলের কাছ থেকে সে এই সোনা নিয়েছিল ৷ আর তাকে এই সোনা বিজয়পুর গ্রামের অজ্ঞাতপরিচয় এক ব্যক্তির কাছে হস্তান্তর করার আগেই ধরে ফেলে বিএসএফ ৷

জওয়ানদের এই কৃতিত্বের প্রশংসা করেন দক্ষিণবঙ্গ সীমান্তের আধিকারিকরা ৷ বিএসএফ সূত্রে জানা গিয়েছে, কুখ্যাত চোরাকারবারীরা দরিদ্র ও নিরীহ মানুষকে সামান্য অর্থের প্রলোভন দিয়ে ফাঁদে ফেলে ৷ কুখ্যাত পাচারকারী চক্র সরাসরি চোরাচালানের মতো অপরাধে জড়িত নয় ৷ তাই তারা দরিদ্র মানুষকে নিশানা করে ৷ বিএসএফ সীমান্তে বসবাসকারীদের কাছে আবেদন জানিয়েছে, তারা যদি সোনা চোরাচালান সংক্রান্ত কোনও তথ্য পায়, তবে তা যেন বিএসএফ-এর সীমা সাথী হেল্পলাইন নম্বর 14419-এ এই তথ্য দিতে পারে ৷ এছাড়া দক্ষিণবঙ্গ সীমান্ত আরও একটি নম্বর 9903472227 জারি করেছে ৷ হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজ বা স্বর্ণ চোরাচালান সম্পর্কিত ভয়েস বার্তাও পাঠানো যেতে পারে ৷ সঠিক তথ্য প্রদানকারী ব্যক্তিকে একটি উপযুক্ত পুরস্কারের পরিমাণ দেওয়া হবে এবং তার পরিচয় গোপন রাখা হবে ৷

আরও পড়ুন:

  1. বনগাঁয় বিএসএফের গুলিতে মৃত্যু বাংলাদেশি 'গরু পাচারকারী' কনস্টেবলের
  2. ইছামতীর তীরে 3 কোটির সোনার ইট ও বিস্কুট পাচারের চেষ্টা রুখে দিল বিএসএফ
  3. কাঁটাতার পেরিয়ে মানবিকতা, জিরো লাইনে বাবার শেষকৃত্যে থাকার অনুমতি বাংলাদেশি মেয়েকে
ETV Bharat Logo

Copyright © 2024 Ushodaya Enterprises Pvt. Ltd., All Rights Reserved.