'সন্দেশখালি কাণ্ডের দিন কলকাতায় ছিলেন নিরাপদ সরদার', নিঃশর্ত মুক্তির দাবি সেলিমের

author img

By ETV Bharat Bangla Desk

Published : Feb 11, 2024, 3:53 PM IST

ETV BHARAT

Mohammed Salim on Nirapada Sardar: নিরাপদ সরদারের নিঃশর্ত মুক্তির দাবি তুললেন সিপিআইএম রাজ্য সম্পাদক মহম্মদ সেলিম ৷ তিনি দাবি করেছেন, সন্দেশখালি কাণ্ডের দিন সিপিআইএমের প্রাক্তন বিধায়ক কলকাতায় ছিলেন ৷ এমনকি 8 ফেব্রুয়ারি তিনি আলিমুদ্দিন স্ট্রিটের অফিসে বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন বলেও জানান সেলিম ৷

কলকাতা, 11 ফেব্রুয়ারি: শিবপ্রসাদ হাজরার পোলট্রি ফার্ম ও বাড়িতে ভাঙচুর, অগ্নিসংযোগের ঘটনার দিন কলকাতায় ছিলেন সিপিআইএম রাজ্য কমিটির সদস্য নিরাপদ সরদার ৷ রবিবার দুপুরে সাংবাদিক সম্মেলন করে এমনটাই দাবি করলেন সিপিআইএম রাজ্য সম্পাদক মহম্মদ সেলিম ৷ সেই প্রেক্ষিতে তিনি নিরাপদ সরদারের নিঃশর্ত মুক্তির দাবি তুলেছেন ৷

এ দিন সেলিম অভিযোগ করেছেন, "পুলিশকে দিয়ে ফেক এফআইআর করে অপরাধী বানানো হয়েছে ৷ আর মূল অপরাধীকে আড়াল করা হচ্ছে ৷ এই শেখ শাহজাহানকে বিজেপি কিনতে চাইছে ৷ 7 তারিখের ঘটনার বর্ণনা দিয়ে 8 তারিখে এফআইআর করা হয়েছে ৷ আর 7-8 তারিখে নিরাপদ সরদার আলিমুদ্দিন স্ট্রিটে ছিলেন ৷ 8 তারিখ রাজ্য কমিটির বৈঠক সেরে বীরভূমে যান, আমাদের খেত মজুর আন্দোলনের নেতা নিরাপদ সরদার ৷ নিঃশর্ত মুক্তি চাই ৷ না হলে আজ থেকেই রাজ্যজুড়ে বিক্ষোভ চলবে ৷ অঘোষিত জরুরি অবস্থা চলছে ৷ ভেরি লুঠ, জমি দখল চলছে ৷ মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় একদিকে মৎস্যসাথী ঘোষণা করছেন ৷ অন্যদিকে, ভেড়ি দখল করছেন ৷"

এই প্রসঙ্গে ন্যাজাটের কথাও টেনে আনেন মহম্মদ সেলিম ৷ তিনি বলেন, "ন্যাজাটে মীনাক্ষী মুখোপাধ্যায়কে বাধা দেওয়া হচ্ছে ৷ সেখানে যেতে দেওয়া হচ্ছে না ৷ উত্তরপ্রদেশ থেকে শুরু করে এই বাংলার ময়নাগুড়ি, ফালাকাটা, বগটুইতে বাধা দিয়েছিল ৷ যেখানে মূক-বধির কিশোরীকে ধর্ষণ করা হয় ৷ আমরা সেখানে গিয়েছিলাম ৷ বাধা দেওয়া যাবে না ৷ ওরা ওখানে যাবেই ৷ 75-25 এর ভাগ (কাটমানি) নিতে গিয়ে কলুষিত করছে রাজনীতি, পরিবেশ ৷ এর বিরুদ্ধে আমাদের আন্দোলন-লড়াই ৷"

সেলিমের অভিযোগ, উত্তর ও দক্ষিণ 24 পরগনা অঞ্চলের বেশ কয়েকটি দুর্গম এলাকা় তৃণমূলের নেতৃত্বে গতকয়েক বছর ধরে বিরোধীশূন্য করার রাজনীতি চলছে ৷ পঞ্চায়েত ও বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানকে বিরোধীশূন্য করার রাজনীতি করছে তৃণমূল ৷ তাঁর অভিযোগ, এই পুরো প্রক্রিয়াকে বাস্তবায়িত করতে পুলিশ ও সিভিল প্রশাসনকে অকেজো করে দিয়েছে শাসকদল ৷ লুটের সাম্রাজ্য গড়ে তোলা হয়েছে বলে অভিযোগ সিপিআইএম রাজ্য সম্পাদকের ৷ এ প্রসঙ্গে সন্দেশখালিতে ইডি-র উপর হামলার ঘটনাটিও টেনে আনেন সেলিম ৷

তিনি বলেন, "হামলার পর থেকে ইডি-সিবিআই শীতঘুমে চলে গিয়েছে ৷ আমরা বারবার এই লুটতরাজ বন্ধ করতে বলেছি ৷ সমাজ বিরোধীদের বিতাড়িত করতে বলেছি ৷ রাজ্যকে দুষ্কৃতীমুক্ত করতে হলে, রাজ্যের মানুষকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে ৷" এই ইস্যুতে রাজ্যের প্রধান বিরোধী দল বিজেপিকেও নিশানা করেন মহম্মদ সেলিম ৷ তিনি বলেন, "এখন বিজেপি প্রত্যেকটা ঘটনাকে রোহিঙ্গা, বাংলাদেশি, হিন্দু-মুসলিম করার চেষ্টা করছে ৷ এটা করেই দুর্নীতি এবং দুষ্কৃতীদের আড়াল করার চেষ্টা করছে ৷ কিন্তু, মানুষ বিশেষত মহিলারা সংগ্রামে অবতীর্ণ হয়েছে ৷ তাঁদের কুর্ণিশ জানাই ৷ তাঁরা তাঁদের ভাষাতেই পুলিশকে বাধ্য করছে অপরাধীদের ধরতে ৷"

সন্দেশখালিতে যখন মানুষ প্রতিবাদে সরব হয়েছে, তখন বাইরের জগৎ থেকে পুরো এলাকাকে বিচ্ছিন্ন করে দেওয়ার চক্রান্ত চলছে বলে অভিযোগ করেছেন সেলিম ৷ আর তার প্রথম পদক্ষেপ হিসেবে ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ করে দেওয়া বলে জানান তিনি ৷ সিপিআইএম রাজ্য সম্পাদক এই ইস্যুতে প্রধানমন্ত্রী ও স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর নাম টেনে আনেন ৷ তিনি অভিযোগ করেছেন, ভারতে সবচেয়ে বেশি ইন্টারনেট পরিষেবা বন্ধ করে দেওয়ার ঘটনা ঘটে ৷ আর এসবের নেতৃত্ব দেন মোদি-অমিত শাহ ৷ সঙ্গে জাতীয় সুরক্ষা উপদেষ্টা অজিত ডোভালের নামও করেন সেলিম ৷

আরও পড়ুন:

  1. কোথায় শিবু-শাহজাহান? উত্তম সর্দারের 'সাসপেনশন' নিয়ে প্রশ্ন বিরোধীদের
  2. 'বেপাত্তা' শিবুর অভিযোগের ভিত্তিতে সন্দেশখালিতে আটক প্রাক্তন সিপিএম বিধায়ক
  3. 'মমতার আশ্রয়ে কালীঘাটে রয়েছেন শাহজাহান', বিস্ফোরক দাবি শুভেন্দুর
ETV Bharat Logo

Copyright © 2024 Ushodaya Enterprises Pvt. Ltd., All Rights Reserved.