আরএসএসের স্বয়ংসেবক থেকে ভারতের উপ-প্রধানমন্ত্রী, একনজরে ‘ভারতরত্ন’ লালকৃষ্ণ আদবানির রাজনৈতিক জীবন

author img

By ETV Bharat Bangla Desk

Published : Feb 3, 2024, 5:54 PM IST

Lal Krishna Advani

‘Bharat Ratna’ Lal Krishna Advani: ভারতরত্ন পাচ্ছেন প্রবীণ বিজেপি নেতা ও প্রাক্তন উপ-প্রধানমন্ত্রী লালকৃষ্ণ আদবানি ৷ শনিবার এই কথা জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ৷ একনজরে দেখে নেওয়া যাক তাঁর রাজনৈতিক কেরিয়ার ৷

হায়দরাবাদ, 3 ফেব্রুয়ারি: ভারতের সর্বোচ্চ অসামরিক সম্মান, ভারতরত্ন পাচ্ছেন ভারতীয় জনতা পার্টির নেতা লালকৃষ্ণ আদবানি ৷ শনিবার প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি সোশাল মিডিয়ায় এই কথা জানিয়েছেন ৷ তার পর থেকে তাঁকে শুভেচ্ছা জানাচ্ছেন সকলে ৷ তাছাড়া চর্চা শুরু হয়েছে আদবানির দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবন নিয়েও ৷

লালকৃষ্ণ আদবানিকে ভারতবাসী তাঁর ব্যাপক বুদ্ধিমত্তা, নীতি-নৈতিকতার দিক থেকে দৃঢ়তা এবং শক্তিশালী ও সমৃদ্ধ ভারতের ধারণার জন্য চেনে ৷ এর জন্য তিনি বহুবার প্রশংসিত হয়েছেন । প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী প্রয়াত অটলবিহারী বাজপেয়ী তাঁর সম্পর্কে একবার জানিয়েছিলেন যে আদবানি কখনও তাঁর জাতীয়বাদী আদর্শের সঙ্গে আপস করেননি ৷ পরিস্থিতি বিচার করে সবসময়ই তিনি রাজনৈতিক প্রতিক্রিয়া দিতেন ৷

1927 সালের 8 নভেম্বর ব্রিটিশ ভারতের করাচিতে (বর্তমানে পাকিস্তান) জন্ম হয় লালকৃষ্ণ আদবানির ৷ তিনি বিজেপির প্রতিষ্ঠাতা সদস্য ৷ বাজপেয়ী জমানায় ভারতের উপ-প্রধানমন্ত্রীও (2002-04) ছিলেন । তিনি 1980 সালে প্রতিষ্ঠার পর থেকে দীর্ঘতম সময়ের জন্য ভারতীয় জনতা পার্টির সভাপতি হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন । প্রায় তিন দশকের সংসদীয় ক্যারিয়ার ৷ বাজপেয়ীর সরকার উপ-প্রধানমন্ত্রী হওয়ার আগে তিনি ছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী (1999-2004)।

একনজরে দেখে নেওয়া যাক, তাঁর রাজনৈতিক জীবন

  • 8 নভেম্বর, 1927: বর্তমানে পাকিস্তানের করাচিতে জন্ম ৷ বাবার নাম- কিষেনচাঁদ ও মায়ের নাম- জ্ঞানিদেবী ৷
  • 1936-1942: করাচির সেন্ট প্যাট্রিক্স স্কুলে পড়াশোনা৷ ম্যাট্রিকুলেশন পর্যন্ত প্রতিটি ক্লাসে প্রথম হতেন ।
  • 1942: স্বয়ংসেবক হিসেবে আরএসএসে যোগদান করেন ।
  • 1942: ভারত ছাড়ো আন্দোলনের সময় হায়দরাবাদের (বর্তমানে পাকিস্তানে) দয়ারাম গিদুমাল ন্যাশনাল কলেজে ভরতি হন ।
  • 1944: করাচির মডেল হাইস্কুল শিক্ষকতা শুরু ৷
  • 12 সেপ্টেম্বর, 1947: দেশভাগের বিভাজনের সময় প্রপেলার বিমানে সিন্ধু থেকে দিল্লির উদ্দেশ্যে রওনা হন ।
  • 1947-1951: করাচি শাখায় আরএসএসের সেক্রেটারি হিসাবে আলওয়ার, ভরতপুর, কোটা, বুন্দি ও ঝালাওয়ারে সংগঠনের কাজ করেন ৷
  • 1957 সালের প্রথম দিকে: অটলবিহারী বাজপেয়ীকে সহায়তা করার জন্য দিল্লিতে স্থানান্তরিত হন ।
  • 1958-63: দিল্লি রাজ্য জনসংঘের সম্পাদক হন ৷
  • 1960-1967: সহকারী সম্পাদক হিসাবে জনসংঘের রাজনৈতিক পত্রিকা অর্গানাইজারে যোগদান করেন ।
  • 25 ফেব্রুয়ারি, 1965: কমলা আদবানিকে বিয়ে করেন৷ তাঁর দুই সন্তান প্রতিভা ও জয়ন্ত ।
  • এপ্রিল 1970: রাজ্যসভার সাংসদ হন ।
  • ডিসেম্বর 1972: ভারতীয় জনসংঘের সভাপতি নির্বাচিত হন ।
  • 26 জুন 1975: জরুরি অবস্থার সময়ে বেঙ্গালুরুতে (তখন ব্যাঙ্গালোর) গ্রেফতার করা হয় তাঁকে ৷ ভারতীয় জনসংঘের অন্যান্য সদস্যদের সঙ্গে বেঙ্গালুরুর কেন্দ্রীয় কারাগারে নিয়ে যাওয়া হয় ।
  • মার্চ 1977 থেকে জুলাই 1979: কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ৷
  • 1980-86: বিজেপির সাধারণ সম্পাদকের পদে ছিলেন ৷
  • মে 1986: ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি)-র সভাপতি ৷
  • 3 মার্চ, 1988: পুনরায় বিজেপির সভাপতি নির্বাচিত হন ।
  • 1990: সোমনাথ থেকে অযোধ্যা পর্যন্ত রাম রথযাত্রা শুরু হয় ।
  • 1997: ভারতের স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপনের জন্য স্বর্ণজয়ন্তী রথযাত্রা শুরু হয় ।
  • 1998- 2004: অটলবিহারী বাজপেয়ীর সরকারে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ৷
  • জুন 2002-মে 2004: অটলবিহারী বাজপেয়ীর সরকারে উপ-প্রধানমন্ত্রী ৷

রাম জন্মভূমি আন্দোলন: আদবানির কর্মজীবনের অনেক উল্লেখযোগ্য মুহূর্তগুলির মধ্যে সবচেয়ে তাৎপর্যপূর্ণ হল 1990-এর দশক ৷ যখন তিনি রাম জন্মভূমি আন্দোলনের মুখ হিসেবে সামনে আসেন ৷ 1990 সালের 25 সেপ্টেম্বর পণ্ডিত দীনদয়াল উপাধ্যায়ের জন্মবার্ষিকীতে রাম রথযাত্রা গুজরাতের সোমনাথ থেকে শুরু হয় ৷ 10 হাজার কিলোমিটার পথ পাড়ি দিয়ে 30 অক্টোবর অযোধ্যায় শেষ হওয়ার কথা ছিল ওই যাত্রা । এর উদ্দেশ্য ছিল রামমন্দির নির্মাণের প্রচারে সমর্থন আদায় করা ।

আরও পড়ুন:

  1. ভারতরত্ন প্রাপ্তির কথা শুনে কেঁদে ফেলেন আদবানী, প্রতিক্রিয়া মেয়ে প্রতিভার
  2. ভারতরত্ন সম্মান পাচ্ছেন লালকৃষ্ণ আদবানি, শুভেচ্ছা প্রধানমন্ত্রী মোদির
  3. রথ থেমেছিল, আন্দোলন নয়! মন্দির উদ্বোধনের আগে স্মৃতিতে ডুব আদবানির
ETV Bharat Logo

Copyright © 2024 Ushodaya Enterprises Pvt. Ltd., All Rights Reserved.