ETV Bharat / bharat

মদ্যপ নাবালকের গাড়ির ধাক্কায় মৃত্যু যুগলের ! আটক অভিযুক্তের বাবা - Pune Accidnet

author img

By ETV Bharat Bangla Team

Published : May 21, 2024, 3:03 PM IST

Pune Hit and Run Case: পুনেতে দুই বাইক আরোহীকে চাপা দিয়ে গাড়ি নিয়ে পালাল 17 বছর বয়সি কিশোর ৷ ঘটনায় অভিযুক্তের বাবাকে মঙ্গলবার আটক করল পুলিশ ৷ কিশোর তার বাবার বিলাসবহুল গাড়ি চালাচ্ছিল বলে জানা গিয়েছে ।

Pune Porsche Accident
পুনে গাড়ি দুর্ঘটনা (নিজস্ব ছবি)

পুনে, 21 মে: পুনের হিট অ্যান্ড রান মামলায় ছত্রপতি সম্ভাজিনগর থেকে আটক অভিযুক্ত নাবালকের বাবা ৷ মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছিল শনিবার মধ্যরাতে পুনে শহরের কল্যাণী নগরে । পার্টি থেকে ফিরছিল 17 বছরের নাবালক ৷ মদ্যপ অবস্থায় সে দ্রুতগতিতে গাড়ি চালাচ্ছিল বলে অভিযোগ ৷ দামী বিদেশি গাড়ি দিয়ে বাইকে থাকা দুই ব্যক্তিকে ধাক্কা মারে অভিযুক্ত ৷ ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় আনিস দুদিয়া ও তাঁর বান্ধবী অশ্বিনী কস্তারের । পুনের এই হিট অ্যান্ড রান মামলায় জুভেনাইল কোর্ট ওই নাবালককে জামিন দিয়ে দেয় । তবে এই ঘটনায় মঙ্গলবার কিশোরের বাবাকে আটক করেছে পুলিশ ৷

পুনের পুলিশ কমিশনার অমিতেশ কুমার বলেন, "আমরা নাবালকের বাবাকে ছত্রপতি সম্ভাজিনগর থেকে আটক করেছি এবং তাঁকে পুনে নিয়ে আসা হচ্ছে ৷ তাঁর বিরুদ্ধে নথিভুক্ত করা মামলায় তাঁকে গ্রেফতার করা হবে ৷"

জানা গিয়েছে, নাবালকের বাবা একজন রিয়েল এস্টেট ডেভেলপার ৷ পুলিশ কিশোরের বাবার বিরুদ্ধে জুভেনাইল জাস্টিস অ্যাক্টের 75 ও 77 ধারার অধীনে এবং একজন অপ্রাপ্তবয়স্ক ব্যক্তিকে অ্যালকোহল পরিবেশন করার জন্য বারের মালিক ও কর্মীদের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেছে । এই মামলাগুলির তদন্ত ক্রাইম ব্রাঞ্চে স্থানান্তর করা হয়েছে ।

পুলিশ সূত্রের খবর, শনিবার মধ্যরাতে একদল বন্ধু পার্টি করে মোটরবাইকে করে ফিরছিল ৷ তখন কল্যাণী নগর মোড়ে একটি মোটরসাইকেলটিকে দ্রুতগতিতে এসে ধাক্কা মারে বিলাসবহুল গাড়ি ৷ গাড়িটি নাবালক চালাচ্ছিল বলে অভিযোগ ৷ এই ঘটনায় দুই বাইক আরোহীর প্রাণ যায় ৷ দুজনেরই বয়স 24 বছর ৷ পুনেতে আইটি কর্মী হিসাবে যুগল কাজ করতেন ৷ আদতে মধ্যপ্রদেশের বাসিন্দা ছিলেন তাঁরা ৷

অভিযুক্ত কিশোরকে পরবর্তীকালে জুভেনাইল জাস্টিস বোর্ডের সামনে হাজির করা হয় ৷ তারা তাকে কয়েক ঘণ্টার মধ্যে জামিন দিয়ে দেয় । তবে বোর্ড নাবালককে আঞ্চলিক পরিবহণ অফিসে গিয়ে ট্রাফিক নিয়ম সম্পর্কে পড়াশোনা করা এবং 15 দিনের মধ্যে বোর্ডের কাছে সেই নিয়ে একটি প্রেজেনটেশন জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে । নির্দেশে বলা হয়েছে, "সিসিএল (চাইল্ড ইন কনফ্লিক্ট উইথ ল) পথ দুর্ঘটনা এবং তার সমাধানের বিষয়ে 300 শব্দের একটি প্রবন্ধ লিখবে ।"

এছাড়াও বোর্ডের তরফে বলা হয়েছে, নাবালককে মনোরোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিতে হবে । ভবিষ্যতে তার হাতে কোনও দুর্ঘটনা ঘটলে তাকে দুর্ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্তদের সাহায্য করতে হবে । নাবালককে এই শর্তে জামিন দেওয়া হয়েছে যে তাকে ডাক্তারের কাছে যেতে হবে এবং কীভাবে মদ্যপান ছাড়া যায় তার পাঠ নিতে হবে ।

পুলিশ জানিয়েছে, যে ডিলার নম্বর প্লেট ছাড়া গাড়ি দিয়েছিল তাঁর বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়া হবে । এই মামলার তদন্ত সহকারী পুলিশ কমিশনারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে এবং এই মামলায় থানার সিসিটিভি ফুটেজও খতিয়ে দেখা হবে । কেউ রাজনৈতিক চাপ দিয়েছি কি না সেটাও খতিয়ে দেখা হবে । পাশাপাশি এই ঘটনায় কোজি ও ব্ল্যাক নামে দুই বার অপারেটরের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে ।

কিশোর সত্যিই নাবালক কি না তা খতিয়ে দেখছে স্কুল । কিন্তু কিশোর যে মদ্যপান করে গাড়ি চালাচ্ছিল তা স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে পুলিশি তদন্তে । ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় নাবালকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে । দুর্ঘটনায় জড়িত কিশোরকে প্রাপ্তবয়স্ক হিসেবে বিচার করার অনুমতির চেয়ে তারা উচ্চ আদালতে যাবে বলে জানিয়েছেন পুলিশ কমিশনার অমিতেশ কুমার ।

কল্যাণী নগর দুর্ঘটনা মামলা নিয়ে আজ পুলিশ কমিশনার অমিতেশ কুমারের সঙ্গে দেখা করেছে সর্বদলের প্রতিনিধি দল । রাতে হোটেল ও পাব বন্ধ করার দাবি জানিয়ে কংগ্রেস, বিজেপি, এমএনএস, এনসিপি-র মতো সমস্ত দলের নেতারা পুলিশ কমিশনারের কাছে বিবৃতি দিয়েছেন ।

আরও পড়ুন:

  1. ছত্তিশগড়ে ডাম্পার উলটে মৃত্যু 19 জনের, আর্থিক সাহায্যের ঘোষণা
  2. ভয়াবহ দুর্ঘটনার কবলে কন্যাযাত্রী বোঝাই গাড়ি, মৃত 3 ; আহত অন্তত 15
  3. ফুল সাজানো চারচাকা জ্বলে গেল দাউদাউ করে, ঝলসে মৃত বর-সহ 4

পুনে, 21 মে: পুনের হিট অ্যান্ড রান মামলায় ছত্রপতি সম্ভাজিনগর থেকে আটক অভিযুক্ত নাবালকের বাবা ৷ মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছিল শনিবার মধ্যরাতে পুনে শহরের কল্যাণী নগরে । পার্টি থেকে ফিরছিল 17 বছরের নাবালক ৷ মদ্যপ অবস্থায় সে দ্রুতগতিতে গাড়ি চালাচ্ছিল বলে অভিযোগ ৷ দামী বিদেশি গাড়ি দিয়ে বাইকে থাকা দুই ব্যক্তিকে ধাক্কা মারে অভিযুক্ত ৷ ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় আনিস দুদিয়া ও তাঁর বান্ধবী অশ্বিনী কস্তারের । পুনের এই হিট অ্যান্ড রান মামলায় জুভেনাইল কোর্ট ওই নাবালককে জামিন দিয়ে দেয় । তবে এই ঘটনায় মঙ্গলবার কিশোরের বাবাকে আটক করেছে পুলিশ ৷

পুনের পুলিশ কমিশনার অমিতেশ কুমার বলেন, "আমরা নাবালকের বাবাকে ছত্রপতি সম্ভাজিনগর থেকে আটক করেছি এবং তাঁকে পুনে নিয়ে আসা হচ্ছে ৷ তাঁর বিরুদ্ধে নথিভুক্ত করা মামলায় তাঁকে গ্রেফতার করা হবে ৷"

জানা গিয়েছে, নাবালকের বাবা একজন রিয়েল এস্টেট ডেভেলপার ৷ পুলিশ কিশোরের বাবার বিরুদ্ধে জুভেনাইল জাস্টিস অ্যাক্টের 75 ও 77 ধারার অধীনে এবং একজন অপ্রাপ্তবয়স্ক ব্যক্তিকে অ্যালকোহল পরিবেশন করার জন্য বারের মালিক ও কর্মীদের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেছে । এই মামলাগুলির তদন্ত ক্রাইম ব্রাঞ্চে স্থানান্তর করা হয়েছে ।

পুলিশ সূত্রের খবর, শনিবার মধ্যরাতে একদল বন্ধু পার্টি করে মোটরবাইকে করে ফিরছিল ৷ তখন কল্যাণী নগর মোড়ে একটি মোটরসাইকেলটিকে দ্রুতগতিতে এসে ধাক্কা মারে বিলাসবহুল গাড়ি ৷ গাড়িটি নাবালক চালাচ্ছিল বলে অভিযোগ ৷ এই ঘটনায় দুই বাইক আরোহীর প্রাণ যায় ৷ দুজনেরই বয়স 24 বছর ৷ পুনেতে আইটি কর্মী হিসাবে যুগল কাজ করতেন ৷ আদতে মধ্যপ্রদেশের বাসিন্দা ছিলেন তাঁরা ৷

অভিযুক্ত কিশোরকে পরবর্তীকালে জুভেনাইল জাস্টিস বোর্ডের সামনে হাজির করা হয় ৷ তারা তাকে কয়েক ঘণ্টার মধ্যে জামিন দিয়ে দেয় । তবে বোর্ড নাবালককে আঞ্চলিক পরিবহণ অফিসে গিয়ে ট্রাফিক নিয়ম সম্পর্কে পড়াশোনা করা এবং 15 দিনের মধ্যে বোর্ডের কাছে সেই নিয়ে একটি প্রেজেনটেশন জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছে । নির্দেশে বলা হয়েছে, "সিসিএল (চাইল্ড ইন কনফ্লিক্ট উইথ ল) পথ দুর্ঘটনা এবং তার সমাধানের বিষয়ে 300 শব্দের একটি প্রবন্ধ লিখবে ।"

এছাড়াও বোর্ডের তরফে বলা হয়েছে, নাবালককে মনোরোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিতে হবে । ভবিষ্যতে তার হাতে কোনও দুর্ঘটনা ঘটলে তাকে দুর্ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্তদের সাহায্য করতে হবে । নাবালককে এই শর্তে জামিন দেওয়া হয়েছে যে তাকে ডাক্তারের কাছে যেতে হবে এবং কীভাবে মদ্যপান ছাড়া যায় তার পাঠ নিতে হবে ।

পুলিশ জানিয়েছে, যে ডিলার নম্বর প্লেট ছাড়া গাড়ি দিয়েছিল তাঁর বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়া হবে । এই মামলার তদন্ত সহকারী পুলিশ কমিশনারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে এবং এই মামলায় থানার সিসিটিভি ফুটেজও খতিয়ে দেখা হবে । কেউ রাজনৈতিক চাপ দিয়েছি কি না সেটাও খতিয়ে দেখা হবে । পাশাপাশি এই ঘটনায় কোজি ও ব্ল্যাক নামে দুই বার অপারেটরের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে ।

কিশোর সত্যিই নাবালক কি না তা খতিয়ে দেখছে স্কুল । কিন্তু কিশোর যে মদ্যপান করে গাড়ি চালাচ্ছিল তা স্পষ্ট হয়ে গিয়েছে পুলিশি তদন্তে । ভারতীয় দণ্ডবিধির একাধিক ধারায় নাবালকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে । দুর্ঘটনায় জড়িত কিশোরকে প্রাপ্তবয়স্ক হিসেবে বিচার করার অনুমতির চেয়ে তারা উচ্চ আদালতে যাবে বলে জানিয়েছেন পুলিশ কমিশনার অমিতেশ কুমার ।

কল্যাণী নগর দুর্ঘটনা মামলা নিয়ে আজ পুলিশ কমিশনার অমিতেশ কুমারের সঙ্গে দেখা করেছে সর্বদলের প্রতিনিধি দল । রাতে হোটেল ও পাব বন্ধ করার দাবি জানিয়ে কংগ্রেস, বিজেপি, এমএনএস, এনসিপি-র মতো সমস্ত দলের নেতারা পুলিশ কমিশনারের কাছে বিবৃতি দিয়েছেন ।

আরও পড়ুন:

  1. ছত্তিশগড়ে ডাম্পার উলটে মৃত্যু 19 জনের, আর্থিক সাহায্যের ঘোষণা
  2. ভয়াবহ দুর্ঘটনার কবলে কন্যাযাত্রী বোঝাই গাড়ি, মৃত 3 ; আহত অন্তত 15
  3. ফুল সাজানো চারচাকা জ্বলে গেল দাউদাউ করে, ঝলসে মৃত বর-সহ 4
ETV Bharat Logo

Copyright © 2024 Ushodaya Enterprises Pvt. Ltd., All Rights Reserved.