শনি-সকালে কেজরিওয়ালের বাড়িতে ক্রাইম ব্রাঞ্চ, মুখ্যমন্ত্রীকে কালিমালিপ্ত করার চেষ্টা; অভিযোগ আপের

author img

By ETV Bharat Bangla Desk

Published : Feb 3, 2024, 1:45 PM IST

ETV Bharat

Delhi Police at Kejriwal's residence: শুক্রবারের পর শনিবার সকালেও দিল্লির মুখ্য়মন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়ালের বাসভবনে পৌঁছল দিল্লি পুলিশের ক্রাইম ব্রাঞ্চ ৷ তাঁর নামে এই নোটিশ জারি করা হয়েছে ৷ তাই তাঁর হাতেই নোটিশ তুলে দিতে হবে, জানিয়েছেন আধিকারিকরা ৷

নয়াদিল্লি, 3 ফেব্রুয়ারি: মুখ্য়মন্ত্রীর বাড়িতে ফের দিল্লি পুলিশের ক্রাইম ব্রাঞ্চ ৷ শনিবার সাতসকালেই দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী তথা আপ প্রধান অরবিন্দ কেজরিওয়ালের বাসভবনে পৌঁছল অপরাধ দমন শাখা ৷ তাঁকে তদন্তে যোগ দেওয়ার জন্য নোটিশ দিতেই কেজরিওয়ালের বাড়িতে আসেন আধিকারিকরা ৷ শুক্রবারও এই নোটিশ দেওয়ার জন্য আধিকারিকরা কেজরিওয়ালের বাসভবনে এসেছিলেন ৷ কিন্তু তাঁকে নোটিশ দিতে না-পারায় ফের শনিবার সকালে হাজির দিল্লি পুলিশ ৷

জানুয়ারির শেষদিকে কেজরিওয়াল দাবি করেছিলেন, বিজেপি আপ বিধায়কদের ভাঙিয়ে আম আদমি পার্টি থেকে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করছে ৷ সেই দাবিতেই তদন্ত শুরু করেছে দিল্লি পুলিশ ৷ আর এই তদন্তে মুখ্যমন্ত্রী অংশ নিন, তাই তাঁর নামে নোটিশ পাঠানো হয়েছে ৷

এই দলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন অ্যাসিস্ট্যান্ট কমিশনার অফ পুলিশ পদমর্যাদার আধিকারিক ৷ এসিপি জানান, এই নোটিশটি অরবিন্দ কেজরিওয়ালের নামে ৷ তাই তাঁর হাতেই দিতে হবে ৷ এদিকে মুখ্যমন্ত্রীর বাসভবনে উপস্থিত আধিকারিকরা জানান, তাঁরা ওই নোটিশটি নেবেন ৷ তার প্রমাণস্বরূপ নোটিশ গ্রহণের নথিটিও দেবেন ক্রাইম ব্রাঞ্চকে ৷ এদিকে আপ সূত্রের অভিযোগ, পুলিশ মিডিয়াকেও সঙ্গে এনেছে ৷ তারা মুখ্যমন্ত্রীকে কালিমালিপ্ত করার চক্রান্ত করছে ৷ শুক্রবারও ক্রাইম ব্রাঞ্চের একটি দল মুখ্যমন্ত্রীর বাসভবনে আসে ৷ এদিন আধিকারিকরা মুখ্যমন্ত্রীর হাতে নোটিশ তুলে দিতে পারেননি ৷ সূত্রে জানা গিয়েছে, অরবিন্দ কেজরিওয়ালের বাসভবনে কেউ এই নোটিশ নিতে চায়নি ৷

21 জানুয়ারি আপ প্রধান অরবিন্দ কেজরিওয়াল অভিযোগ করেন, আপের 7 জন বিধায়ককে বিজেপি 25 কোটি টাকা দিতে চেয়েছে ৷ গেরুয়া শিবির তাঁদের হুমকিও দিয়েছে যে, খুব শীঘ্রই কেজরিওয়ালের সরকার পড়ে যাবে ৷ তাই ওই বিধায়করা 25 কোটি টাকা নিয়ে পদ্মশিবিরে যোগ দিন ৷ এই ঘটনাটি সোশাল মিডিয়ায় বিস্তারিত জানিয়েছিলেন অরবিন্দ কেজরিওয়াল ৷ এমনকী তাঁর মন্ত্রিসভার অন্যতম সদস্য আতিশিও একই অভিযোগ করেন, "বিজেপি দিল্লিতে 'অপারেশন লোটাস 2.0' চালু করেছে ৷ গত বছরও ঠিক এইভাবে অর্থের বিনিময়ে আপ বিধায়কদের ভাঙিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করেছিল বিজেপি ৷ তবে সেবার তারা ব্যর্থ হয় ৷"

এই অভিযোগের পর 30 জানুয়ারি দিল্লি বিজেপির একটি প্রতিনিধি দল পুলিশের কাছে গিয়ে এর তদন্ত দাবি করে ৷ ওই দলের নেতৃত্বে ছিলেন দিল্লি বিজেপির সভাপতি বীরেন্দর সচদেবা ৷ পুলিশ কমিশনার সঞ্জয় অরোরার সঙ্গে দেখা করে বিজেপি সভাপতি জানান, কেজরিওয়ালের অভিযোগের সমর্থনে কোনও তথ্যপ্রমাণ পেশ করা হয়নি ৷ তাই আপ প্রধান এই অভিযোগটি প্রমাণ করুন ৷ এরপর শুক্রবার ক্রাইম ব্রাঞ্চের একটি দল দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল, মন্ত্রী আতিশির বাড়িতে নোটিশ দিতে চান ৷ তবে আতিশি বাড়িতে না-থাকায় নোটিশ দেওয়া যায়নি ৷

আরও পড়ুন:

  1. আবগারি দুর্নীতি মামলায় চতুর্থবার কেজরিওয়ালকে তলব ইডির
  2. বিধায়কদের 20 কোটির প্রলোভন, অপারেশন লোটাস সামলাতে জরুরি বৈঠকে কেজরিওয়াল
  3. লোকসভা ভোটের আগে তাঁকে গ্রেফতার করতে চায় বিজেপি, দাবি কেজরির
ETV Bharat Logo

Copyright © 2024 Ushodaya Enterprises Pvt. Ltd., All Rights Reserved.