ICC World Cup 2023: অনায়াসে পাক-বধের রহস্য কী ? ড্রেসিংরুমের রহস্যভেদ সহ-অধিনায়ক হার্দিকের

author img

By ETV Bharat Bangla Desk

Published : Oct 15, 2023, 7:41 PM IST

Image Courtesy: BCCI

Reasons Behind Dominating Win Against Pakistan in Cricket World Cup: ভারত বনাম পাকিস্তান ম্যাচের সেরা হয়েছেন জসপ্রীত বুমরা ৷ 7 ওভার বল করে মাত্র 19 রান দিয়ে গুরুত্বপূর্ণ 2 উইকেট তুলেছেন ভারতীয় পেসার ৷ কী তাঁর সাফল্যের রহস্য ? খোঁজ নিলেন হার্দিক পান্ডিয়া ৷

আমেদাবাদ, 15 অক্টোবর: পাকিস্তানকে 7 উইকেটে হেলায় হারিয়ে বিশ্বকাপের পয়েন্ট তালিকায় সবার উপরে ভারত ৷ শনিবার বিপক্ষকে আগে ব্যাট করতে পাঠিয়ে মাত্র 191 রানে তাদের ইনিংস শেষ করে দিয়েছিলেন ভারতীয় বোলারা ৷ আর সেই রান তাড়া করতে নেমে মাত্র 30.3 ওভারে লক্ষ্যে পৌঁছে যায় ভারতীয় দল ৷ যেখানে অধিনায়ক রোহিত শর্মা 63 বলে 86 রানের আক্রমণাত্মক ইনিংস খেলেন ৷ কিন্তু, এই একপেশে ম্যাচ জয়ের আসল রহস্য কী ? তারই খোঁজ দিলেন ভারতীয় দলের সহ-অধিনায়ক হার্দিক পান্ডিয়া ৷ একেবারে ড্রেসিংরুমের ভিতরের খবর ৷

বিসিসিআই টিভি'র বিশেষ চ্যাটে হার্দিক প্রথম পাকড়াও করেন অধিনায়ক রোহিতকে ৷ যিনি তখন বাউন্ডারি লাইনে ব্যস্ত ছিলেন কেক কাটতে ৷ হার্দিক তাঁকে এ দিনের ইনিংস নিয়ে প্রশ্ন করায় রোহিতের জবাব, ‘‘পিচ ব্যাটিংয়ের জন্য অনেক সহজ ছিল ৷ যদিও, আমি সেঞ্চুরি মিস করেছি ৷ কিন্তু, দলে অনেক ক্রিকেটার রয়েছে, যাঁরা আগ্রাসী ক্রিকেট খেলতে পারেন ৷ দলের কাউকে না-কাউকে সেই দায়িত্বটা নিতে হবে ৷ আমি অধিনায়ক হিসেবে সেটা নিজেই করছি ৷ আর গত দু'বছর ধরে এমন আগ্রাসী ক্রিকেট খেলার চেষ্টা করছিলাম ৷ বিশ্বকাপে তা সফল হচ্ছে ৷’’

শনিবারের ম্যাচে একটি ছয় মারার পর আম্পায়ার এরাসমাসকে হাতের বাইসেপ দেখান রোহিত ৷ যা নিয়ে অধিনায়ক বলেন, ‘‘আমাকে আম্পায়ার বলছে, এত বড় বড় ছয় কীভাবে মারো ? নিশ্চয়ই ব্যাটে কিছু আছে ৷ আমি তখন বললাম ব্যাটে কিছু নেই, পুরোটাই পাওয়ার ৷’’ এখানেই বাক্যালাপের শেষে রোহিতকে আলিঙ্গন করে ড্রেসিংরুমের দিকে দৌড় দেন হার্দিক ৷ এবার সেখানে তিনি খোঁজ শুরু করেন ম্যাচের সেরা জসপ্রীত বুমরার ৷ কিন্তু, বুমরা সেই সময় ড্রেসিংরুমে ছিলেন না ৷ ফলে রবীন্দ্র জাদেজাকে ধরেন আলাপচারিতার জন্য ৷

কীভাবে এত সহজ-সরলভাবে বোলিং করেন স্যার জাদেজা ? হার্দিকের এই প্রশ্নে নিজের বোলিং রহস্যভেদ করেননি তিনি ৷ শুধু জানালেন, 155 রানের মাথায় বাবরকে আউট করার পর, যেভাবে ভারত ম্যাচে ফিরেছে তাতে পুরো দলের অবদান রয়েছে ৷ আর এখানেই উঠে আসে ভারতের প্রথম পাঁচ বোলারের মিলিতভাবে 2টি করে উইকেট নেওয়ার প্রসঙ্গ ৷ জাদেজার সঙ্গে সংক্ষিপ্ত আলাপচারিতার পরেই হার্দিকের নজরে আসেন ব্যাটিং কোচ বিক্রম রাঠোর ৷

  • 𝗥𝗮𝘄 𝗘𝗺𝗼𝘁𝗶𝗼𝗻𝘀 - 𝗮𝗻𝗱 𝘄𝗲 𝗺𝗲𝗮𝗻 𝗶𝘁! 🎥

    From the dugout to the dressing room to the streets of Ahmedabad - Scenes post India's win over Pakistan! 👏👏#CWC23 | #TeamIndia | #INDvPAK | #MeninBlue

    WATCH 🔽

    — BCCI (@BCCI) October 15, 2023 " class="align-text-top noRightClick twitterSection" data=" ">

আরও পড়ুন: তাঁকে খেলতে কেন ব্যর্থ হলেন পাক ব্যাটাররা, খোলসা করলেন কুলদীপ

ক্রিজের একদিকে আগ্রাসী ব্যাটিং এবং অন্যদিকে, ধৈর্য্য ধরে ইনিংস গড়া ৷ দু’রকমের ব্যাটিংই চোখে পড়েছে ভারতের ইনিংসে ৷ কী এমন শেখাচ্ছেন ক্রিকেটারদের ? ভারতীয় ব্যাটিং কোচের জবাব, ‘‘সবাইকে স্বাধীনতা দিয়েছি ৷ মাঠে নেমে নিজেদের মতো খেলার পরামর্শ দিয়েছি ৷ নিজেদের খেলাটাকে উপভোগ করতে বলেছি ৷’’ এরপরেই ব্যাটিং কোচকে কিছুটা ফাঁদে ফেলার চেষ্টা করেন হার্দিক ৷ তাঁর প্রশ্ন ছিল, ‘‘কেন এই ছাড় দিয়েছে আপনি ?’’ বিক্রমের জবাব, ‘‘তুই বলেছিস বলেই দিয়েছি ৷ তোর পরামর্শ ছিল, সেটাকে আমরা মেনে নিয়েছি ৷’’

এবার বোলিং ইউনিটের গুরুত্বপূর্ণ সদস্য সিরাজকে প্রশ্ন করতে দেখা যায় হার্দিককে ৷ যিনি প্রথমবার 50 ওভারের বিশ্বকাপে ভারত বনাম পাকিস্তান ম্যাচে খেললেন ৷ সেই অভিজ্ঞতা ভাগ করে নেন সিরাজ ৷ জানালেন, আবদুল্লা শফিককে আউট করার আগের বল তিনি শর্ট করেছিলেন ৷ তার পরেই রোহিতের সঙ্গে আলোচনা করে পরবর্তী বল কিছুটা আগে রাখেন ৷ কিন্তু, শফিক শর্ট বলের জন্যই অপেক্ষা করছিলেন, তাই লেগ বিফর আউট হন তিনি ৷

আরও পড়ুন: দিল্লিতে টস জিতে আফগানদের ব্যাটিংয়ে আমন্ত্রণ বাটলারের

তবে, সবার শেষে আলোচনায় ফের উঠে আসেন ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের সেরা ক্রিকেটারের পুরস্কার পাওয়া জসপ্রীত বুমরার প্রসঙ্গ ৷ আর তাঁর নাম উঠতেই, হার্দিক এবং সিরাজকে মসকরা করতে দেখা যায় ৷ হার্দিক এবং সিরাজের একই বক্তব্য ৷ জসপ্রীত বুমরা বেশি কথা বলতে পছন্দ করেন না ৷ তিনি শুরুতেই পিচ বুঝে নেন ৷ তারপর তাঁর হাত থেকে বেরনো বল কথা বলে ৷ সিরাজের কথায়, ‘বুম-লেজেন্ড’ ৷

আর জসপ্রীত বুমরাকে সামনে পেতেই হার্দিকের প্রশ্ন ছিল, কীভাবে এত সহজে তিনি বুঝতে পারলেন. এই পিচে কোন লাইন ও লেন্থে বল করতে হবে ? বুমরার জবাব, ‘‘এই পিচে আমি জুনিয়র লেবেল অনেক ক্রিকেট খেলেছি ৷ সেই অনুভবকে কাজে লাগিয়েছি ৷ আর প্রথমে একটা বল সামনে ফেলে চার খাওয়ার পরেই বুঝে গিয়েছিলাম ওটা সঠিক লেন্থ নয় ৷ তাই বলের লেন্থ পিছনে নিয়ে আসি ৷ আর একবার চার খাওয়ার পর, সামনে থেকে চারটে চার খাওয়ার কোনও মানে হয় না ৷’’ আর সবশেষে ম্যাচের সেরা জসপ্রীত বুমরাকে ‘মাটির মানুষ’ শিরোপা দিয়ে ড্রেসিংরুমের সফর শেষ করেন হার্দিক পান্ডিয়া ৷

ETV Bharat Logo

Copyright © 2024 Ushodaya Enterprises Pvt. Ltd., All Rights Reserved.